শিরোনাম:
আশুলিয়ায় এক যুবকের অর্ধ-গলিত লাশ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ। সাংবাদিকের ওপর সন্ত্রাসী হামলা করায় ৮ জনকে কারাগারে সাভার কেয়ার হাসপাতালে ভূল চিকিৎসার তথ্য সংগ্রহ করতে গেলে সাংবাদিককে হত্যার হুমকি নুসরাত হত্যা ওসি মোয়াজ্জেমকে রংপুরে বদলির প্রতিবাদে জুতা প্রদর্শন! আশুলিয়ায় বাড়িওয়ালার হাতুড়িপেটায় মা-মেয়ে গুরুতর আহত সাভারের আশুলিয়ায় মা মেয়ে সহ ৩ নারীকে ধর্ষণের অভিযোগে ভন্ড পীর গ্রেপ্তার। প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া চাকরিতে যোগ দিলেন নুসরাতের ভাই পিবিআই’র আন্তরিকতায় শিল্পী হত্যার মূলরহস্য উৎঘাটন করতে পেরেছি: ইনস্পেক্টর সুরুজ উদ্দিন ফোন চুরি যাওয়ায় সাংবাদিকদের আটকে রাখলেন শমী কায়সার! শমী কায়সারের পজেটিভ সংবাদ বর্জনের দাবি বিএমএসএফ’র বিদায় বেলায়ও মা-বাবাকে কাছে পেলেন না জায়ান সাভারে বিরল প্রজাতি গন্ধগোকুল উদ্ধার সেফাতউল্লাহ ওরফে সেফুদা’র বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে। আশুলিয়ায় এক নারীর মৃতদেহ উদ্ধার! আশুলিয়ায় যত্রতত্র বিক্রয় হচ্ছে বিপদজনক মেয়াদ উর্ত্তীণ গ্যাস সিলিন্ডার গার্মেন্টসকর্মী মাহাবুর হত্যার রহস্য উন্মোচন, চাপাইনবাগঞ্জ থেকে স্বামী-স্ত্রী গ্রেপ্তার ওসির অনুরোধে নুসরাত হত্যাকাণ্ডকে আত্মহত্যা বলে স্ট্যাটাস দেন সাংবাদিক নবম শ্রেণির পরীক্ষার প্রশ্নে সানি লিওন, মিয়া খলিফা! চট্টগ্রামে নুসরাত হত্যার দ্রুত বিচার দাবিতে বিএমএসএফ’র সমাবেশ জনপ্রিয়তার প্রতিহিংসায় ষড়যন্ত্রের কারাগারে সাবেক ভোলা জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি- মোস্তাক শাহিন এক পিস জুতার অনুসন্ধানে খুনের অভিযোগে ৯ জনকে গ্রেফতার সাভার পুলিশ। সাংবাদিকের দিকে আঙ্গুল তুললে হাত ভেঙ্গে দেয়া হবে…বিএমএসএফ আশুলিয়ায় মটর শ্রমিক লীগের ব্যানার ছেরায় থানায় অভিযোগ। সাভারে জনসমুক্ষে যুবককে কুপিয়ে হত্যা, মরদেহ এনাম মেডিকেলে আশুলিয়ায় ডাকাতির প্রস্তুতিকালে ৮ ডাকাত আটক! সাভারে হত্যা করে গুমের তিনদিন পর স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতার ভাসমান লাশ উদ্ধার সাভারে গ্যাস সিলিন্ডারে ৪৬ হাজার ইয়াবা, আটক ২ ৩৯ লাখ টাকার ব্রিজ ব্যবহার করে একটি পরিবার! সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধে ভুটানের প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা নিবেদন নুসরাত হত্যাকাণ্ডে জড়িতরা বিন্দুমাত্র ছাড় পাবে না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। অবৈধ গ্যাসলাইন কাটতে গেলে তদবির আসে : জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী নুসরাতের জানাজার নামাজে লোকজন এর ঢল! বাবা নিজেই জানাজা পড়ান! আশুলিয়ায় সাংবাদিকের উপর সন্ত্রাসী হামলা ! দু’সপ্তাহ আগেও আর দশজনের মতো হাসিখুশি ছিলেন নুসরাত জাহান রাফি। নুসরাতের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক ফেনীর সেই মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত মারা গেছেন ইনিউজ ডেস্ক সাংবাদিকরা সবচেয়ে জীবনের বেশি ঝুঁকি নিয়ে কাজ করে থাকে! পাবনায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর হাতে অস্ত্র জমা দিয়ে ৬ শতাধিক চরমপন্থীর আত্নসমর্পন করবেন! রানা প্লাজার সোহেল রানার জামিন আবেদন খারিজ! আশুলিয়ায় দেওয়াল ধসের আতংকে এলাকা বাসি সাভারে এক নারীকে চাকুরির প্রলোভন দেখিয়ে গন ধর্ষন, আটক ৫ দগ্ধ নুসরাতকে সিঙ্গাপুর নেওয়ার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর ভূমির ড্রেজিং করায় ১০০ একর জমি নদীর গর্ভে বিলীন!? সাভারে নারীর লাশের সঙ্গে ২ হাজার ৬০ পিচ ইয়াবা উদ্ধার পরকীয়ার জেরে প্রবাসীর দাম্পত্যে আত্মহত্যা শেখ হাসিনার অঙ্গীকার ১০ টাকা ধরে পাবে চাউল। আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেলেন পাথালিয়া ইউনিয়নে চলছে মাদকের ছড়াছড়ি হামলার সময় হেলমেট পরার নির্দেশ দিয়েছিলেন নেতারা আইন সহায়তা কেন্দ্র (আসক) ফাউন্ডেশনে ভর্তি দ্বায়িত্ব নিয়েছে শাকিলের যাকেই মনোনয়ন দেওয়া হবে তাকেই মেনে নিতে হবে : প্রধানমন্ত্রী মন্তব্য করুন জিএমপি’র কাশিমপুর থানায় কুখ্যাত মাদক সম্রাট আঃ জলিল ৬০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট সহ গ্রেফতার।। জিএমপি’র কাশিমপুর থানায় ইয়াবা সহ আটক-১।
আজ সেই ভয়াল ২৫ মার্চ, গণহত্যা দিবস

আজ সেই ভয়াল ২৫ মার্চ, গণহত্যা দিবস

আজ সেই ভয়াল ২৫ মার্চ, গণহত্যা দিবস

মার্চ ২৫, ২০১৯

ডেস্ক রিপোর্ট :

আজ সেই ভয়াল ২৫ মার্চ, জাতীয় গণহত্যা দিবস। শান্তিপূর্ণ সমাধানের পথ এড়িয়ে প্রেসিডেন্ট ইয়াহিয়া এগোন গণহত্যার নীলনকশা বাস্তবায়নের পথে। ‘অপারেশন সার্চলাইট’ নিয়ে পাকিস্তানি সেনারা একাত্তরের এই রাতে ঝাঁপিয়ে পড়ে নিরস্ত্র-নিরীহ বাঙালি নিধনযজ্ঞে। ঢাকাসহ দেশের বড় শহরগুলোতে মাত্র এক রাতেই হানাদাররা নির্মমভাবে হত্যা করে অর্ধলক্ষাধিক ঘুমন্ত মানুষকে। স্তম্ভিত বিশ্ব অবাক হয়ে দেখে বর্বর পাকসেনাদের হাতে সংঘটিত মানব ইতিহাসের জঘন্যতম নিষ্ঠুর হত্যাযজ্ঞ।

২০১৭ সালের ১১ মার্চ জাতীয় সংসদে ২৫ মার্চ জাতীয় গণহত্যা দিবস পালনের প্রস্তাব সর্বসম্মতভাবে গৃহীত হওয়ার পর থেকেই দিনটি জাতীয় গণহত্যা দিবস হিসেবে পালিত হয়ে আসছে। একাত্তরের এই দিনে বাঙালি জাতির জীবনে এক বিভীষিকাময় রাত নেমে আসে। মধ্যরাতে বর্বর পাকিস্তানি হানানদার বাহিনী কাপুরুষের মতো তাদের পূর্ব পরিকল্পিত অপারেশন সার্চলাইটের নীলনকশা অনুযায়ী আন্দোলনরত বাঙালিদের কণ্ঠ চিরতরে স্তব্ধ করে দিতে রাজধানী ঢাকাসহ সারাদেশে নিরস্ত্র বাঙালিদের ওপর অত্যাধুনিক অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে হত্যাকান্ড চালায়। অনেকেই মনে করেন, ২৫ মার্চের গণহত্যা শুধু এক রাতের হত্যাকান্ডই ছিল না, এটা ছিল মূলত বিশ্ব সভ্যতার জন্য এক কলঙ্কজনক জঘন্যতম গণহত্যার সূচনা মাত্র।

অস্ট্রেলিয়ার ‘সিডনি মর্নিং হেরাল্ড’ পত্রিকার ভাষ্যমতে শুধুমাত্র পঁচিশে মার্চ রাতেই বাংলাদেশে প্রায় এক লাখ মানুষকে হত্যা করা হয়েছিল, যা গণহত্যার ইতিহাসে এক জঘন্যতম ভয়াবহ ঘটনা। পরবর্তী নয় মাসে একটি জাতিকে নিশ্চিহ্ন করে দেওয়ার লক্ষ্যে ৩০ লাখ নিরপরাধ নারী-পুরুষ-শিশুকে হত্যার মধ্য দিয়ে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী ও তাদের দোসররা পূর্ণতা দিয়েছিল সেই বর্বর ইতিহাসকে। তাদের সংঘটিত গণহত্যা, ধর্ষণ, লুণ্ঠন, অগ্নিসংযোগ সবই ১৯৪৮ সালের ১১ ডিসেম্বর জাতিসংঘ কর্তৃক গৃহীত ‘জেনোসাইড কনভেনশন’ শীর্ষক ঐতিহাসিক সিদ্ধান্তে বর্ণিত সংজ্ঞায় গণহত্যার চূড়ান্ত উদাহরণ। এই গণহত্যার স্বীকৃতি খোদ পাকিস্তান সরকার প্রকাশিত দলিলেও রয়েছে।

পূর্ব পাকিস্তানের সংকট সম্পর্কে যে শ্বেতপত্র পাকিস্তানি সরকার মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে প্রকাশ করেছিল, তাতে বলা হয়: ‘১৯৭১ সালের পয়লা মার্চ থেকে ২৫ মার্চ রাত পর্যন্ত এক লাখেরও বেশি মানুষের জীবননাশ হয়েছিল।’ ১৯৭০-এর সাধারণ নির্বাচনে সংখ্যাগরিষ্ঠ ভোটে জয়লাভ করা সত্ত্বেও আওয়ামী লীগের কাছে পাকিস্তানি জান্তা ক্ষমতা হস্তান্তর না করার ফলে সৃষ্ট রাজনৈতিক অচলাবস্থা নিরসনের প্রক্রিয়া চলাকালে পাকিস্তানি সেনারা কুখ্যাত ‘অপারেশন সার্চলাইট’ নাম দিয়ে নিরীহ বাঙালি বেসামরিক লোকজনের ওপর গণহত্যা শুরু করে। তাদের এ অভিযানের মূল লক্ষ্য ছিল আওয়ামী লীগসহ তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তানের প্রগতিশীল রাজনৈতিক নেতা-কর্মীসহ সকল সচেতন নাগরিককে নির্বিচারে হত্যা করা। ২৫ মার্চ দুপুরের পর থেকেই ঢাকাসহ সারাদেশে থমথমে অবস্থা বিরাজ করতে থাকে। এদিন সকাল থেকেই সেনা কর্মকর্তাদের তৎপরতা ছিল চোখে পড়ার মতো।

হেলিকপ্টার যোগে তারা দেশের বিভিন্ন সেনানিবাস পরিদর্শন করে বিকেলের মধ্যে ঢাকা সেনানিবাসে ফিরে আসে। ঢাকার ইপিআর সদর দপ্তর পিলখানাতে অবস্থানরত ২২তম বালুচ রেজিমেন্টকে পিলখানার বিভিন্ন স্থানে অবস্থান নিতে দেখা যায়। এদিন মধ্যরাতে পিলখানা, রাজারবাগ, নীলক্ষেত আক্রমণ করে পাকিস্তানি সেনারা। হানাদার বাহিনী ট্যাংক ও মর্টার নিয়ে নীলক্ষেতসহ বিশ্ববিদ্যালয় এলাকা দখলে নেয়। সেনাবাহিনীর মেশিনগানের গুলিতে, ট্যাংক-মর্টারের গোলায় ও আগুনের লেলিহান শিখায় নগরীর রাত হয়ে উঠে বিভীষিকাময়। পাকিস্তানি হায়েনাদের কাছ থেকে এদিন রক্ষা পায়নি রোকেয়া হলের ছাত্রীরাও। ড. গোবিন্দ চন্দ্র দেব ও জ্যোতির্ময় গুহ ঠাকুরতা, অধ্যাপক সন্তোষ ভট্টাচার্য, ড. মনিরুজ্জামানসহ বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের ৯ জন শিক্ষককে নিষ্ঠুরভাবে হত্যা করা হয়। ঢাবির জগন্নাথ হলে চলে নৃশংসতম হত্যার সবচেয়ে বড় ঘটনাটি। এখানে হত্যাযজ্ঞ চলে রাত থেকে সকাল পর্যন্ত। প্রেসিডেন্ট ইয়াহিয়া খান অপারেশন সার্চ লাইট পরিকল্পনা বাস্তবায়নের সকল পদক্ষেপ চূড়ান্ত করে গোপনে ঢাকা ত্যাগ করে করাচি চলে যান। সেনা অভিযানের শুরুতেই হানাদার বাহিনী বাঙালি জাতির অবিসংবাদিত নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে তার ধানমন্ডির বাসভবন থেকে গ্রেপ্তার করে। এর আগে বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশের স্বাধীনতা ঘোষণা করেন এবং শেষ শত্রম্ন বিদায় না হওয়া পর্যন্ত যুদ্ধ চালিয়ে যাওয়ার আহবান জানান।

বঙ্গবন্ধুর এই আহবানে সাড়া দিয়ে বাঙালি পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর বিরুদ্ধে যুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়ে এবং দীর্ঘ ৯ মাস সশস্ত্র লড়াই শেষে একাত্তরের ১৬ ডিসেম্বর পূর্ণ বিজয় অর্জন করে। বিশ্বের মানচিত্রে অভ্যুদয় ঘটে নতুন রাষ্ট্র বাংলাদেশের। বিভিন্ন কর্মসূচি: জাতি আজ গভীর শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করবে পঁচিশে মার্চের সেই কালরাতে নির্মম হত্যাযজ্ঞের শিকার অগণিত শহীদকে। রাজধানীতে বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন ‘কালরাত’ স্মরণে নানা কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। দিনভর থাকছে আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও রাতে মোমবাতি প্রজ্বালন। বাঙালির ওপর পাকিস্তানি সেনাদের চালানো সেই নিধনযজ্ঞের প্রতি চরম ঘৃণা জানাতে আজ সোমবার রাত রাত ৯টা ১ মিনিটের জন্য অন্ধকারে বস্ন্যাক আউট ডুবে যাবে দেশ।

জরুরি স্থাপনা ও চলমান যানবাহন ছাড়া এ সময় দেশের কোথাও জ্বলবে না কোনো আলো। স্মরণ করা হবে স্বাধীনতাকে। স্কুল, কলেজ এবং মাদ্রাসাসহ সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে বিশিষ্ট ব্যক্তি এবং বীর মুক্তিযোদ্ধাদের কন্ঠে ২৫ মার্চ গণহত্যার স্মৃতিচারণা ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়েছে। দেশের বিভিন্ন স্থানে গণহত্যার ওপর দুর্লভ আলোকচিত্র ও প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া একাত্তরের ২৫ মার্চ রাতে নিহতদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে এদিন বাদ জোহর দেশের সকল মসজিদে বিশেষ মোনাজাত এবং অন্যান্য

উপাসনালয়গুলোতে সুবিধাজনক সময়ে প্রার্থনার আয়োজন করা হয়েছে। কেন্দ্রীয়ভাবে এবং সকল জেলা ও উপজেলায় ২৫ মার্চ জাতীয় গণহত্যা দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভার আয়োজন করাসহ সারাদেশে গণহত্যা ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক গীতিনাট্য এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

ভালো লাগলে অবশ্যই পোস্টটি শেয়ার করবেন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।




© All rights reserved © gtvbangla.com
Theme Developed BY ThemesBazar.Com